কুয়েটে বিএমই বিভাগে সেমিনার ও ইএসই বিভাগে নবীনবরণ অনুষ্ঠিত


বরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। বিকাল ৩ঃ০০ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টুডেন্ট ওয়েলফেয়ার সেন্টারে বিএমই বিভাগের আয়োজনে “সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং রিসার্চ ফর হিউম্যানিটি” শীর্ষক সেমিনারটি অনুষ্ঠিত হয়। সেমিনারে প্রধান অতিথি ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইলেক্ট্রিক্যাল এন্ড ইলেক্ট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং (ইইই) অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. মহিউদ্দিন আহমাদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন ইলেক্ট্রনিক্স এন্ড কমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং (ইসিই) বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ড. এ বি এম আওলাদ হোসেন, ইইই বিভাগের প্রফেসর ড. মোঃ নূরুন্নবী মোল্লা। সেমিনারে কী-নোট স্পীকার ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বায়োমেডিকেল ফিজিক্স এন্ড টেকনোলজী বিভাগের প্রফেসর ড. খন্দকার সিদ্দিক ই রব্বানী। গেষ্ট স্পিকার ছিলেন ঢাকার সামরিতা হসপিটাল লিঃ এর বায়োমেডিকেল ইঞ্জিনিয়ার ও মেইনটেনেন্স বিভাগের প্রধান ইঞ্জিঃ এস এম আব্দুস সোবহান এবং ঢাকার বিআরবি হসপিটাল লিঃ এর বায়োমেডিকেল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান ইঞ্জিঃ শেখ ওসমানুল কাদির। সভাপতিত্ব করেন কুয়েটের বায়োমেডিকেল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ড. মুহাম্মাদ মুঈনুল ইসলাম। অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিএমই বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ অন্যান্য বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করেন। 
অপরদিকে, বিকাল সাড়ে ৩টায় ইএসই বিভাগের ২০১৮ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের নবীনবরণ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অফ এনভাইরনমেন্ট এন্ড পাওয়ার টেকনোলজী (আইইপিটি) এর ডিরেক্টর প্রফেসর ড. এ এন এম মিজানুর রহমান, পরিচালক (ছাত্র কল্যাণ) প্রফেসর ড. শিবেন্দ্র শেখর শিকদার, পেট্রোম্যাক্স রিফাইনারি এন্ড পেট্রোম্যাক্স এলপিজি লিঃ এর সিনিয়র জেনারেল ম্যানেজার ইঞ্জিঃ মোঃ আসাদ উল্লাহ। সভাপতিত্ব করেন ইএসই বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ড. মোহাম্মদ আরিফুল ইসলাম। নবীন বরণ অনুষ্ঠানে ইএসই বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

No comments

Powered by Blogger.