চুয়েটে ইনস্টিটিউট অফ এনার্জি টেকনোলজি’র জাতীয় কনফারেন্স অনুষ্ঠিত


চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট)-এর মাননীয় ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ রফিকুল আলম বলেছেন, দেশের অর্থনৈতিক সম্মৃদ্ধির জন্য বিদ্যুৎ ও জ্বালানির গুরুত্ব অনস্বীকার্য। কিন্তু বিশ্বব্যাপী জলবায়ু পরিবর্তন ও ক্রমাগত পরিবেশ দূষণের ফলে জ্বালানি সংকট ক্রমশ প্রকট আকার ধারণ করেছে। সংকুচিত হয়ে যাচ্ছে প্রাকৃতিক জ্বালানি উৎসমূহ। যার প্রভাব ইতোমধ্যে আমাদের দেশেও পড়তে শুরু করেছে। সেজন্য জ্বালানির ক্রমবর্ধমান চাহিদা মেটাতে আমাদের নবায়নযোগ্য জ্বালানির (রিনিউয়েবল এনার্জি) প্রতি গুরুত্ব দিতে হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্নের উন্নত বাংলাদেশ গড়তে নবায়নযোগ্য জ্বালানির প্রসার ঘটাতে হবে। চুয়েট ভিসি আরো বলেন, বর্তমান সরকার বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতের সংকট দূর করার জন্য এলএনজি টার্মিনাল নির্মাণ, মাতারবাড়ি বিদ্যুৎকেন্দ্র ও রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রসহ বেশকিছু যুগান্তকারী প্রকল্প হাতে নিয়েছে। জ্বালানি সংকট দূর করার পাশাপাশি শিল্পক্ষেত্রে অটোমেশন প্রযুক্তির মাধ্যমে উৎপাদন বাড়ানোর প্রতি মনোনিবেশ করতে হবে। চুয়েটের ইনস্টিটিউট অফ এনার্জি টেকনোলজির জাতীয় কনফারেন্স এই খাতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখবে আমি বিশ্বাস করি।

তিনি অদ্য ১৩ ডিসেম্বর (বৃহস্পতিবার), ২০১৮ খ্রিঃ বিশ্ববিদ্যালয়ের যন্ত্রকৌশল বিভাগের সেমিনার কক্ষে ইনস্টিটিউট অফ এনার্জি টেকনোলজি (আইইটি)-এর আয়োজনে প্রথম জাতীয় কনফারেন্স ‘এনসিইটিআইএ-২০১৮ (1st National Conference on Energy Technology & Industrial Automation; NCETIA-2018)-এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। আইইটির পরিচালক অধ্যাপক ড. মোঃ তাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজির সাবেক পরিচালক অধ্যাপক ড. এ.কে.এম ইকবাল হোসাইন এবং চুয়েট গবেষণা ও সম্প্রসারণ দপ্তরের পরিচালক অধ্যাপক ড. মোঃ সাইফুল ইসলাম। মেকাট্রনিক্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রভাষক জনাবা শাফওয়াত নাজিফার সঞ্চালনায় এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন কনফারেন্সের সদস্য সচিব ও আইইটির গবেষণা সহকারী অধ্যাপক ড. সৈয়দ আবু নাহিয়ান।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে অধ্যাপক ড. এ.কে.এম ইকবাল হোসাইন বলেন, জ্বালানি সংকট মোকাবেলায় বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ে আরো গভীরতর গবেষণা হওয়া উচিত। পৃথিবীর অধিকাংশ দেশে এই সংকট নিরসণে টেকসই প্রযুক্তি ও নবায়নযোগ্য জ্বালানির প্রতি মনযোগ দিচ্ছে। চুয়েটের জ্বালানি প্রযুক্তি ও শিল্পক্ষেত্রে অটোমেশন শীর্ষক কনফারেন্স একটি সময়োপযোগী পদক্ষেপ। সেজন্য চুয়েট প্রশাসন প্রশংসার দাবিদার।

কনফারেন্সে ÔEnabling the Prospects of Neuclear Energy in BangladeshÕ শিরোনামে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন বাংলাদেশ এটমিক এনার্জি কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান জনাব মোঃ আলী জুলকারনাইন। এবারের কনফারেন্সে সারাদেশের প্রায় ২৫০ শিক্ষক-গবেষক অংশগ্রহণ করবেন। এছাড়া এনার্জি টেকনোলজি, ইন্ডাস্ট্রিয়াল অটোমেশন এন্ড মেকাট্রনিক্স (Energy Technology, Industrial Automation & Mechatronics)-এর উপর ১০ টি প্রজেক্ট নিয়ে একটি প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত হয়। কনফারেন্সে সার্বিক সহযোগিতা ছিলেন ইপিআরসি বাংলাদেশ এবং বিএসএমই। পৃষ্ঠপোষকতায় ছিলো আইইএস, চট্টগ্রাম।

Powered by Blogger.