কুয়েটে জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত


খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (কুয়েট) ১৫ মার্চ বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৩টায় স্টুডেন্ট ওয়েলফেয়ার সেন্টারে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস ২০১৮ উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

অলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মুহাম্মদ আলমগীর। প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিঁনি বলেন, “বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ ও বাঙ্গালীর মূল স্তম্ভ। বাঙ্গালীর শিকড় বঙ্গবন্ধুর আদর্শে গড়া, বাঙ্গালী ও বাংলাদেশ থেকে বঙ্গবন্ধুকে আলাদা করা যাবে না। তিনি না থাকলে আমরা স্বাধীন দেশ, পতাকা, ভূখন্ড পেতাম না। বাংলাদেশকে এগিয়ে যেতে হলে বঙ্গবন্ধুর দিক নির্দেশনাকে পাথেয় মেনে এগিয়ে যেতে হবে”। 

পরিচালক (ছাত্র কল্যাণ) প্রফেসর ড. সোবহান মিয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন ইউআরপি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ড. মোঃ মোস্তফা সারোয়ার, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলের প্রভোস্ট প্রফেসর ড. পিন্টু চন্দ্র শীল, রেজিস্ট্রার জি এম শহিদুল আলম। 

অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন পাবলিক রিলেশনস অফিসার মনোজ কুমার মজুমদার। আলোচনা সভায় অন্যান্যের মধ্যে আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন বিইসিএম এর সহকারী অধ্যাপক মোঃ হামিদুল ইসলাম, অফিসার্স এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মোঃ মাহমুদুল হাসান, কর্মচারীদের মধ্যে মোঃ পারভেজ আলম।

উল্লেখ্য, জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষ্যে কুয়েটের বিস্তারিত কর্মসূচীর মধ্যে ১৭ মার্চ শনিবার সকাল সাড়ে ৭টায় ক্যাম্পাসস্থ বিদ্যালয়সমূহের শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে রচনা, চিত্রাংকন, হাতের সুন্দর লেখা, নির্ধারিত উপস্থিত বক্তৃতা প্রতিযোগিতা। সকাল ৯টায় আনন্দ র‌্যালী, সকাল সাড়ে ৯টায় ক্যাম্পাসের স্টুডেন্ট ওয়েলফেয়ার সেন্টারে অস্থায়ীভাবে স্থাপিত জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন, সকাল ৯ঃ৪৫টায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর জীবনাদর্শের বিভিন্ন দিক উপস্থাপন, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত হবে। 

অনুষ্ঠানসমূহে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মুহাম্মদ আলমগীর। এছাড়া, আসর বাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে।

No comments

Powered by Blogger.